Sale!

Gowala Khejur Gur (Patali) – খেজুর এর পাটালি গুড়

৳ 250 ৳ 200

Gowala Khejur Gur (Patali )

SKU: Khejur Gur Category: Tags: ,

Description

বাংলাদেশে শীতকাল আসা মানেই কেমন একটা পিঠা পিঠা গন্ধ চলে আসে। কারন শীতকাল মানেই হল পিঠার উৎসব শুরু। বাচ্চারা ফাইনাল পরীক্ষা দিয়েই চলে আসে দাদাবাড়ি অথবা নানাবাড়ি। গ্রামে বা শহরে শুরু হয় পিঠা তৈরির ধুম। বিশেষ করে গ্রামে। আর এই পিঠা তৈরির অন্যতম মুল উপকরণ হল গুড়। গুড় ছাড়া পিঠা যেন ভাবাই যায়না। আমাদের আজকের এই লেখাটি মূলত গুড়কে কেন্দ্র করে। আর সেটা বিশেষভাবে যশোরের বিখ্যাত পাটালি গুড়কে নিয়ে। আসুন আমরা গুড়ের মিষ্টি রাজ্যে একটু ঢুঁ মারি।

পাটালি গুড়ঃ

গুড় বানানোর জন্য আখ, খেজুর বা তালের রস একটি বড় পাত্রে ছেঁকে নেওয়া হয়। এরপর পাত্রটি চুলায় বসানো হয় এবং জাল দেওয়া শুরু হয়। পানির অংশ বাষ্প হয়ে উড়ে যায়। আর রসের অংশ লালচে বর্ণ ধারন করে ধিরে ধিরে। এভাবে গুড় তৈরি হয়। আবার রসকে চিনিও বানানো যায়। তবে চিনির থেকে গুড়ের পুষ্টিগুণ অনেক বেশি। জদিও গুড় স্বাদে মিষ্টি কম। চিনির জন্য দুইবার রসকে ফোটানোর পর ঘন কালচে তিতকুটে ভেলি গুড় পাওয়া যায়। আর বেশি ফুটালে পাওয়া যায় অনেক ভিটামিন সমৃদ্ধ চিটা গুড়। এটি স্বাদে অনেক তিতা। তাই গরুকে খাওয়ানো হয় এটা।

পাটালি গুড় জমাট বাঁধা অবস্থায় থাকে। এই গুড় শুধুমাত্র শীতকালে পাওয়া যায়। কারন শীতকালের খেজুর রস সংগ্রহ করে এটি তৈরি করা হয়। গ্রামে গেলে দেখা যায় শীতকালে প্রায় সব খেজুর গাছে হাড়ি বাঁধা থাকে। গাছ থেকে রস হাড়িতে পরে। সেই হাড়ি নিয়ে পরে জাল দিয়ে পাটালি গুড় বানানো হয়। পাটালি গুড় শক্ত ধরনের একটু। একে অনেকদিন সংরক্ষন করে রাখা যায়। ফ্রিজে কিংবা শুকনা পাত্রে রেখে দিয়ে ব্যাবহার করা যায়। যশোরের খাজুরা এলাকা সবচেয়ে বেশি বিখ্যাত তাদের পাটালি গুড়ের জন্য। এলাকার বেশিরভাগ মানুষ এই গুড় তৈরিতে নিয়োজিত।

পাটালি গুড় স্বাদে মিষ্টি। রঙ অনেক গাড় হয়। বিভিন্ন মজার খাবার তৈরিতে পাটালি গুড়ের জুড়ি নেই। গুড়ের পায়েস, ভাপা পিঠা দুধ চিতই, চৈ পিঠা, নাড়ু, মোয়া ও নকশি পিঠার মত মজাদার খাবার তৈরিতে এই পাটালি গুড় ব্যাবহার করা হয়। গুড়ের পায়েস অনেক মজার একটি খাবার। এর স্বাদ যেমন অনন্য গন্ধ তেমন মিষ্টি। অনেকে শুধু মুড়ি অথবা চিড়া দিয়ে গুড় খায়। আবার অনেকে দুধ ভাতের সাথে গুড় মাখিয়ে খায়।

গুড় শুধু স্বাদ বাড়াতে ব্যাবহার হয় তা নয়। গুড়ের অনেক উপকার রয়েছে। প্রবাদ আছে “দোষত্রয়ক্ষয়কারয় নমো গুড়ায়”। বাত, পিণ্ড ও কফ এই তিন দোষ গুড় দূর করে। এছাড়া গুড় দ্রুত হজম হয় চিনির তুলনায়। চিনি শরীরের জন্য বেশ ক্ষতিকারক। গুড়ে পুষ্টিগুণ বেশি চিনির থেকে। এমনকি গুড়ে শক্তি বাড়ে। কিডনি রোগ, ম্যালেরিয়া, প্রসাবের সমস্যায়, শরীরের দুর্বলতায়, ক্ষয় রোগ ইত্যাদি রোগের উপশমে গুড় অনেক ভাল কাজ কারে।

Reviews

There are no reviews yet.

Be the first to review “Gowala Khejur Gur (Patali) – খেজুর এর পাটালি গুড়”

Your email address will not be published. Required fields are marked *